জামায় হাতের কাজের ডিজাইন

in hive-129948 •  2 months ago 

আসসালামুআলাইকুম সবাইকে।



আমার বাংলা ব্লগের বন্ধুরা কেমন আছেন? আশা করি সবাই ভাল আছেন। আমিও ভাল আছি আলহামদুলিল্লাহ।



আজকে আবার হাজির হয়ে গেলাম নতুন একটি আর্ট নিয়ে। অনেকদিন পর আবার জামার ডিজাইন এর আর্ট করেছি। এই আর্টগুলো করতে বেশ ভালই লাগে। তাছাড়া এরকম আর্ট যদি জামায় করে হাতে কাজ করা যায় সুতা দিয়ে তাহলে দেখতে খুবই চমৎকার লাগে। স্টুডেন্ট লাইফে তো এরকম হাতের কাজ অনেক করেছি। এখন বাচ্চাদের নিয়ে আর সময় হয় না। এই আর্ট গুলো জামায় করে সুতা দিয়ে সেলাই করলে দেখতে খুবই চমৎকার লাগে। পুরনো স্মৃতি মনে করার জন্যই এই আর্টগুলো মাঝেমধ্যে করি। আর আপনাদের সঙ্গে শেয়ার করি। আশা করি আপনাদের ভালই লাগে। তাহলে কথা না বাড়িয়ে শুরু করি। আমার আজকের আর্টটি কিভাবে করেছি তা নিচে ধাপে ধাপে আপনাদেরকে দেখিয়ে দিচ্ছি।



PhotoCollageMaker_20228109579958.jpg

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

প্রয়োজনীয় উপকরণ

  • সাদা কাগজ
    • পেন্সিল
  • রাবার

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

প্রথমে একটি সাদা কাগজ নিয়ে তার এক সাইডে এরকম ছবির মত একটি ডিজাইন এঁকেছি। তারপর তার সাইডে কিছু ফুল এঁকেছি।

IMG20220727102046.jpgIMG20220727102238.jpg

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

ডান পাশে ফুলের উপরে আরো কিছু পাতা এঁকেছি । ফুল এবং পাতার ভেতরের ছোট ছোট দাগ দিয়েছি। তারপর নিচের দিকে আরো কিছু ফুল এঁকেছি।

IMG20220727102807.jpgIMG20220727103242.jpg

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

ফুলগুলোর ভিতরে ছোট ছোট দাগ দিয়েছি তার নিচে আরো কিছু পাতা এঁকে পাতার ভিতরে ছোট ছোট দাগ দিয়েছি।

IMG20220727103635.jpgIMG20220727104021.jpg

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

বাম পাশের ডিজাইনটির দুই পাশ দিয়ে ছোট ছোট গোল গোল ডিজাইন করেছি এবং ভিতরে পেন্সিল দিয়ে কালার করেছি।

IMG20220727104353.jpg

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

সবশেষে ভিতরে আমার নামের সাইন করে আমার আর্টটি শেষ করেছি।

IMG20220727104357.jpg

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

IMG20220727104419.jpg


এই ছিল আমার আজকের আয়োজন। আশা করি আপনাদের সকলের ভাল লেগেছে। সময় নিয়ে আমার পোস্টটি দেখার জন্য সকলকে ধন্যবাদ । সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন। পরবর্তী দেখা হবে আবার নতুন কিছু নিয়ে।

D4F8200E-DF6A-4082-876E-9F44C642A671.png

ধন্যবাদ

@tania

Photography@tania
Phoneoppo reno5
আমি তানিয়া তমা। আমি বাংলাদেশে থাকি। ঢাকায় বসবাস করি। আমি বিবাহিত। আমার দুটি ছেলে আছে। আমার শখ রান্না করা, শপিং করা, ঘুরে বেড়ানো। আমি বাংলায় কথা বলতে ভালোবাসি। আমি আমার বাংলাদেশকে ভালবাসি।

animasi-bergerak-terima-kasih-0078.gif

IMG_20220106_113311.png

Authors get paid when people like you upvote their post.
If you enjoyed what you read here, create your account today and start earning FREE STEEM!
Sort Order:  

image.png

ঠিকই বলেছেন আপু এ ধরনের ডিজাইনগুলো জামায় করে সুতা দিয়ে সেলাই করে পড়লে খুবই ভালো দেখা যায় ।আগে আমিও অনেক করেছি ইদানিং তো পড়াই হয় না, মানুষ নিজের হাতে এখন কিছুই করে না। আপনি ডিজাইনটি কিন্তু খুব সুন্দর করে এঁকেছেন এটি জামায় করে পরলে দেখতে ভালোই লাগবে।

ঠিক বলেছেন আপু এখন নিজের হাতে আর কোনো কিছুই করেনা। সব মেশিন দিয়ে তৈরি করে । ধন্যবাদ আপনার মন্তব্যের জন্য।

এখন প্রায় দেখতে পাই সবাই এক রঙ্গের কাপড় কিনে এনে সেটাতে বিভিন্ন ধরনের ডিজাইন উঠায়। ঠিক তেমনি আপু আপনার তৈরি করার ডিজাইনটি দেখতে অনেক সুন্দর হয়েছে। আপনি অনেক সুন্দর ভাবে ডিজাইনটি তৈরি করার পাশাপাশি ধাপগুলো অনেক সুন্দর ভাবে উপস্থাপন করেছেন।
আপনার জন্য শুভকামনা রইল

ঠিক বলেছেন ভাইয়া এক রঙের কাপড়ের উপরে এরকম ডিজাইন গুলো সুতা দিয়ে করা হয়। দেখতে খুব ভালো লাগে। ধন্যবাদ আপনাকে।

জামার ডিজাইন আমি খুব একটা দেখিনি এই প্ল্যাটফর্মে এসে। আপনার শেয়ার করার ডিজাইনটি দেখে আমার ভাল লেগেছে। এটা ঠিক বলেছেন বিয়ের পর আর শখের কাজ অনেক কিছুই করা যায় না, আসলে করা হয় না ব্যস্ততার কারণে। আপনার জামার ডিজাইন অনেক সুন্দর হয়েছে। খুব সুন্দরভাবে প্রতিটি ধাপ আপনি দেখিয়েছেন। আশা করি এরকম নতুন নতুন জামার ডিজাইন আপনি আমাদের মাঝে আরও শেয়ার করবেন। ধন্যবাদ আপু।

আমি এর আগেও বেশ কয়েকটি জামার ডিজাইন শেয়ার করেছিলাম। আপনি হয়তো মিস করে গিয়েছেন ।ধন্যবাদ ভাইয়া আপনার মন্তব্যের জন্য।

আমার জন্য আপনার জামার ডিজাইন এটাই প্রথম ছিল আপু। আর আমি ভেরিফায়েড হয়েছি ৪ সপ্তাহ হল, তাই হয়ত আগে শেয়ার করে থাকলেও আমার মিস হয়ে গিয়েছে। ধন্যবাদ আপু।

আপু আমি আগে জামায় অনেক সুন্দর হাতের কাজ করতাম। কিন্তু এখন কেন জানি ডিজাইন ভুলে যাই আজ আপনার জামায় করার জন্য ডিজাইনটি দেখে খুবই ভালো লাগলো। আসলে সুন্দর হয়েছে ফুলগুলো ভরাট করলে জামা অনেক আকর্ষণীয় লাগবে।

আসলে কোন একটা জিনিস দীর্ঘদিন না করলে সেই জিনিসটি ভুলেই যেতে হয়। আমিও যেমন সেলাই করা মনে হয় এখন ভুলেই গিয়েছি।

খুবই চমৎকার একটি জামার গলার ডিজাইন দেখিয়েছেন। দেখতে বেশ সুন্দর লাগছে। সুতা দিয়ে ফুলগুলো ভরাট করলে দেখতে আরো বেশ ভালো লাগবে। আগেকার মানুষ নিজের হাতে নিজেই ডিজাইন করে জামা বানিয়ে পড়েছে। এখন খুব একটা দেখা যায় না। আপনাকে ধন্যবাদ এরকম একটি ডিজাইন শেয়ার করার জন্য।

ঠিক বলেছেন ভাইয়া সুতা দিয়ে ফুলগুলো ভরাট করলে দেখতে খুবই ভালো লাগবে। মাঝে মাঝে তো মনে হয় যে সেলাই করতে বসে যাই । কিন্তু সময় হয় না। ধন্যবাদ ভাইয়া আপনাকে।

এই দারুন ডিজাইন গুলো যেকোনো জায়গাতে করলে সুন্দর লাগবে জামার হাতায় এটা বেশ মানাবে এবং দেখতে সুন্দর লাগবে।ধন্যবাদ শেয়ার করার জন্য।

জামার হাতায় না ভাইয়া জামার গলার কাছে দিলে বেশি মানাবে। ধন্যবাদ আপনার মন্তব্যের জন্য।

জানেন তো আপু এই ডিজাইন টা যদি সত্যি সত্যি জামার ওপর ফুটিয়ে তোলা যেত তাহলে কত ভালো লাগতো দেখতে 👌👌। একদম সিম্পলের মাঝে গর্জিয়াস। আপনার হাতের কাজ গুলো সব সময় চোখে লাগার মতো। জানি ভাগ্নেদের জন্য অনেক কিছুই করা হয়ে ওঠে না, তারপরেও চেষ্টা করবেন একবার কাপড়ের ওপর এমন কিছু একটা ডিজাইন করার।

বাচ্চাদের নিয়ে আঁকতেই পারিনা, আর তো সুই সুতা দিয়ে সেলাই। তা আর কোন দিনই সম্ভব নয়। ধন্যবাদ ভাইয়া আপনাকে।

আপু,জামায় হাতের কাজ ডিজাইন টা সত্যিই অসাধারণ। এরকম ডিজাইন যদি জামাই একে সুতা দিয়ে তৈরি করা হয় তাহলে কিন্তু বেশ সুন্দর দেখাবে।সত্যি কথা বলতে কি আপু,এখন আর সেই হাতের কাজের ডিজাইন দিয়ে মানুষ কাপড় সচরাচর পড়ে না। আগে প্রতিনিয়ত আমার মা খালারা দেখতাম কাপড়ে এঁকে এঁকে সুতা দিয়ে কাজ করতেন আর দেখতেও বেশ সুন্দর লাগত। আপু,আপনার জামায় হাতের কাজের ডিজাইন টা বেশ দারুন হয়েছে খুবই নিখুঁতভাবে আপনি অঙ্কন করেছেন। ধন্যবাদ আপু,এত সুন্দর একটি অঙ্কন আমাদের মাঝে শেয়ার করার জন্য।।

ঠিক বলেছেন আপু এখন কি আর হাতের কাজ চলে, সব মেশিনে হয়ে গিয়েছে । এক সময় আমিও অনেক ডিজাইন এঁকে সেলাই করেছি জামায়। খুবই ভালো লাগতো তখন। ধন্যবাদ আপনাকে।

হ্যাঁ আপু আপনি ঠিকই বলেছেন এই আর্টগুলো জামায় করার পর সুতা দিয়ে কাজ করলে দেখতে খুবই চমৎকার লাগে । পুরনো কথা মনে করে আর্ট টি করেছেন জেনে ভালো লাগলো ।আপনার করা আর্টটি কিন্তু খুবই চমৎকার হয়েছে । আমার কাছে তো বেশ ভালো লেগেছে । ধাপগুলো বেশ ভাল ছিল । ধন্যবাদ আপনাকে ।

আমার করা আর্টটি আপনার কাছে ভালো লেগেছে জেনে খুশি হলাম। সময় নিয়ে পোস্টটি দেখার জন্য এবং সুন্দর মন্তব্য করার জন্য ধন্যবাদ।