রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি রেসিপি [ভিডিও] 10% beneficiary to @shy-fox.

in hive-129948 •  2 months ago 

আসসালামুয়ালাইকুম,

20220608_135115.jpg

সবাই কেমন আছেন? আশা করি আল্লাহর রহমতে সবাই ভাল আছেন। আমিও মোটামুটি ভালো আছি।

চলে এসছি আপনাদের মাঝে খুবই সুস্বাদু একটি রেসিপি নিয়ে আমার আজকের রেসিপি রুই মাছ বেগুনের মাখা ঝোল তরকারি রেসিপি।

রুই মাছ খুবই স্বাদের মাছ, তবে ছোট রুই মাছে প্রচুর কাঁটা থাকে বড় রুই মাছের কাঁটা কম থাকে। যদি রুই মাছ মুচমুচে ভাজা করা হয়,তাহলে কাটার ভয় তেমন থাকে না। এছাড়াও লম্বা বেগুন গুলো দারুন লাগে কোন তরকারির সাথে রান্না করে খেতে। আমরা এই বেগুন গুলোকে চট্টগ্রামে বাসায় সিলেটি বেগুন বলে থাকি তবে কেন এই নাম টা ডাকা হয় সেটা আমি ভালো করে জানি না🤭 এই বেগুন সব রকমের তরকারির সাথে খেতে বেশ দারুন লাগ। এই বেগুন দিয়ে বেগুন ভাজা,বেগুন ভুনা, বেগুন পাকোড়া তৈরি করে খেতে বেশ দারুন লাগে আমার কাছে।আজকে সকালে অনেক বড় একটা রুই মাছ কেনা হয়েছে তো ভাবলাম ঘরে বেগুন রয়েছে রুই মাছ দিয়ে বেগুন গুলো রান্না করলে খেতে দারুন হবে যে কথা সেই কাজ শুরু করে দিলাম রান্না। রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি টি কিন্তু বেশ সুস্বাদু খেতে।আমার রান্না করা রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি রেসিপি আপনাদের কেমন লাগবে জানি না।তবে আশা করি আপনাদের এই রেসিপিটি ভালো লাগবে।

ভিডিও লিং"

তাহলে চলুন,কিভাবে রুই মাছ বেগুন দিয়ে সুস্বাদু তরকারি রেসিপি তৈরি করেছি। তা আপনাদের মাঝে ধাপে ধাপে ভিডিওর মাধ্যমে শেয়ার করি।

20220608_124130.jpg

উপকরণ সমূহ"

  • রুই মাছ- ৫০০ গ্রাম।

  • বেগুন-২৫০ গ্রাম।

  • পেঁয়াজ-২ টি।

  • কাঁচা মরিচ-৭-৮ টি।

  • লাল মরিচ গুঁড়া-১ চামচ।

  • হলুদ গুঁড়া -হাফ চামচ।

  • জিরা,ধনিয়া গুঁড়া -১ চামচ।

  • সয়াবিন তেল- ৮ চামচ।

  • লবণ স্বাদ মতো।

  • ধনিয়া পাতা পরিমাণ মত।

20220608_131231.jpg

প্রস্তুত প্রণালীঃ

১ম ধাপ"

Screenshot_20220609-131804_Gallery.jpgScreenshot_20220609-131822_Gallery.jpgScreenshot_20220609-131839_Gallery.jpgScreenshot_20220609-131903_Gallery.jpg

Screenshot_20220609-131953_Gallery.jpg

আমি আগে থেকে রুই মাছগুলো টুকরো করে রেখেছিলাম।এবার রুই মাছের টুকরো ধুয়ে একটা প্লেটে নিলাম। রুই মাছের টুকরোগুলো ধুয়ে নেওয়া হলে, এবার পরিমান মত হলুদ এবং লবণ দিয়ে ভালো করে মাখিয়ে নিয়ে কিছুক্ষণ রেখে দিবো। কিছুক্ষণ পর একটি প্যানে আট চামচ সয়াবিন তেল দিলাম।তেল গরম হলে, একে একে রুই মাছের টুকরোগুলো প্যানে দিয়ে মুচমুচে ভেজে নিব।এবার লাল ভাজা করা হয়ে গেলে, একটি বাটিতে আমি রুই মাছের টুকরোগুলো নিয়ে নিলাম।

২য় ধাপ"

Screenshot_20220609-132013_Gallery.jpgScreenshot_20220609-132421_Gallery.jpgScreenshot_20220609-132430_Gallery.jpg

Screenshot_20220609-132509_Gallery.jpg

রুই মাছের টুকরোগুলো ভাজা করা হয়ে গেলে, এবার আমি চুলাই হাড়িতে মাছ ভাজার অবশিষ্ট তেল ঢেলে দিলাম। এবার আমি পেঁয়াজ কুচি,কাঁচামরিচ টুকরোগুলো হাড়িতে দিয়ে চামচের সাহায্যে নেড়েচেড়ে ভেজে নিব। পেঁয়াজ হালকা বাদামী রং হয়ে এলে,অল্প লবণ দিয়ে বেগুন গুলো ঢেলে ভেজে নিব চুলার মাঝারি আঁচে। বেগুন ভাজা ভাজা হয়ে এলে,এখন আমি টমেটোর টুকরোগুলো দিয়ে চামচের সাহায্যে নেড়েচেড়ে নিব এভাবে।

৩য় ধাপ"

Screenshot_20220609-132518_Gallery.jpgScreenshot_20220609-132539_Gallery.jpgScreenshot_20220609-132544_Gallery.jpg

Screenshot_20220609-132602_Gallery.jpg

টমেটোর টুকরোগুলো নেড়েচেড়ে বেগুনের সাথে ভেজে নেওয়া হলে,এবার আমি একে একে সব মসলার গুঁড়া দিব হাড়িতে । লাল মরিচ গুঁড়া, হলুদ গুঁড়া, জিরা ধনিয়া গুঁড়া, এবং স্বাদমতো লবণ।সব মসলা দেওয়া হলে, চামচের সাহায্যে নেড়েচেড়ে টমেটো বেগুনের সাথে সব মসলা ভাল করে ভেজে নিব। মসলাগুলো ভালো করে ভাজা হলে,এবার আমি পরিমাণমতো পানি দিয়ে চামচের সাহায্যে একটু নেড়েচেড়ে দিব।এবার আমি ভেজে রাখা রুই মাছের টুকরোগুলো হাড়িতে দিয়ে একটা ঢাকনা দিয়ে ঢেকে ১৫ মিনিটের জন্য রান্না করবো।

৪র্থ ধাপ"

Screenshot_20220609-132621_Gallery.jpg

Screenshot_20220609-132628_Gallery.jpg

১৫ মিনিট পর তরকারি ঝোল মাখামাখা হলে, আমি রুই মাছ বেগুনের তরকারিতে ধনেপাতা কুচি ছিটিয়ে দিয়ে তরকারি স্বাদ দেখে চুলা বন্ধ করে দিব।

রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি রেসিপি গরম ভাতের সাথে খেতে বেশ দারুন লাগে। আমি কখনো এভাবে রান্না করে খাই নি। তবে এই প্রথম রান্না করেছি সত্যিই খুবই সুস্বাদু রেসিপি।

20220608_135115.jpg

বন্ধুরা,আমার রান্না করা রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি রেসিপি আপনাদের কেমন লেগেছে?
যদি ভালো লাগে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন।
আপনাদের কমেন্ট আপনাদের ভালোবাসা ভালো কাজ করার উৎসাহ যোগায়।

ভুল ত্রুটি হলে, ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন।

ধন্যবাদ,সবাই ভাল থাকবেন।।

Authors get paid when people like you upvote their post.
If you enjoyed what you read here, create your account today and start earning FREE STEEM!
Sort Order:  

আপনার রেসিপি দেখেই তো খেতে ইচ্ছে করছে আপু। খুবই মজাদার মনে হচ্ছে, আর আপনি খুব সহজভাবে রুই মাছ দিয়ে বেগুন রান্নার রেসিপি শেয়ার করেছেন অনেক অনেক ধন্যবাদ জানাই আপনাকে আর আপনার জন্য শুভকামনা রইল।

image.png

রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল রেসিপি দেখতে পেরে অনেক ভালো লাগলো আপু। আপনি সব সময় মজাদার রেসিপি তৈরি করে আমাদের মাঝে শেয়ার করেন। আপনার প্রতিটি পোস্ট আমি দেখি আমার কাছে অনেক বেশি ভালো লাগে। আপনার তৈরি রেসিপি দেখে অনেক লোভনীয় লাগছে আপু ধন্যবাদ

রুই মাছ আমার খুবই প্রিয় মাছ। বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল রেসিপি তৈরি অনেক সুন্দর হয়েছে আপু। আপনার রেসিপির কালার টা অনেক সুন্দর হয়েছে। অনেক ভালো লাগলো সুন্দর উপস্থাপন ও ভিডিও ধারন করে শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ।

চমৎকার একটি রেসিপি আমাদের মাঝে শেয়ার করেছেন। বেগুন আমার খুবই ভালো লাগে। শুটকি দিয়ে রান্না করলে আরও বেশি ভালো লাগে খেতে। প্রতিটি ধাপ অনেক সুন্দর ভাবে উপস্থাপন করেছে। আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ ।এরকম চমৎকার একটি রেসিপি আমাদের মাঝে শেয়ার করার জন্য। আপনার জন্য রইল শুভকামনা।

বেগুন এবং আলু দিয়ে রুই মাছ খেতে আমি খুবই পছন্দ করি। আজকে আপনি খুবই সুন্দরভাবে বেগুন দিয়ে রুই মাছের রেসিপি তৈরি করেছেন যা দেখে মনে হচ্ছে খেতে খুবই সুস্বাদু হয়েছে। রুই মাছের এতো সুস্বাদু একটা রেসিপি আমাদের মাঝে উপস্থাপন করার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ আপু।

ঝাল ঝাল একটি রেসিপি প্রস্তুত করেছেন ঝাল ঝাল রেসিপি বরাবরই আমার খুব ফেভারিট রেসিপি দেখে লোভ হচ্ছে খেতে নিশ্চয়ই খুব মজা হয়েছিল বিশেষ করে ভাজা মাছগুলো দেখে লোভ সামলানো মুশকিল

বেগুনের সাথে রুই মাছের অসাধারন একটি রেসিপি আমাদের মাঝে শেয়ার করেছেন। দেখে মুগ্ধ হয়ে গেলাম। কালারটা অসাধারণ এসেছে। সাথে আপনার উপস্থাপনা মাশাল্লাহ অনেক ভাল ছিল। খুব সুন্দর করে সবকিছুর বর্ণনা আমাদের সামনে তুলে ধরেছেন। ধন্যবাদ আপনাকে এরকম সুন্দর একটি রুই মাছের রেসিপি আমাদের মাঝে শেয়ার করার জন্য।

রুই মাছ খেতে আমার কাছে অনেক বেশি ভালো লাগে। একদম ঠিক বলেছেন বড় রুই মাছের কাটা কম হয়। আর ভাজা করা হলে নরম হয়ে যায় ।আপনি খুব সুন্দর করে তৈরি করেছেন যা দেখে বোঝা যাচ্ছে ।অসাধারণ দেখতে হয়েছে রেসিপিটি।

রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি টি কিন্তু বেশ সুস্বাদু খেতে

আসলে রুই মাছের প্রত্যেকটি রেসিপি অনেক সুস্বাদু হয় আপু। বেগুন দিয়ে খুবই চমৎকার ভাবে রুই মাছের রেসিপি তৈরি করে আজকে আপনি আমাদের মাঝে শেয়ার করেছেন। আপনার শেয়ার করা রেসিপি টা দেখে আমার এখনই খেতে ইচ্ছা করছে।

রুই মাছ আর বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল রেসিপি তৈরি করেছেন আর রেসিপি তৈরি শেষে যখন আলাদা পাত্রে পরিবেশন করেছেন তখন মাছগুলো দেখে যে এতটা লোভ লেগেছে সেটা আমি আপনাকে বলে বোঝাতে পারবো না আপু।

রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাছের ঝোল তরকারি রেসিপি দেখে সাথে সাথেই জিভে জল চলে এসেছে আমার। খুবই অসম্ভব সুন্দর একটি রেসিপি তৈরি করেছেন। আমার কাছে অসম্ভব ভাল লেগেছে আপনার এই রেসিপিটি। শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ। শুভকামনা রইল আপনার জন্য।

আপনি খুবই চমৎকার ভাবে আমাদের মাঝে রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি রেসিপি শেয়ার করেছেন ।রেসিপিটি দেখেই বোঝা যাচ্ছে অনেক বেশি সুস্বাদু এবং লোভনীয় ছিল। ধন্যবাদ আপনাকে এত মজাদার একটি রেসিপি আমাদের সকলের মাঝে শেয়ার করার জন্য।

আপনি রুই মাছ বেগুন দিয়ে মাখা ঝোল তরকারি রেসিপিটা অসাধারণ ভাবে তৈরি করেছেন। দেখে আমার লোভ লেগে গেল। আপনি চমৎকার ভাবে এটা আমাদের মাঝে উপস্থাপন করেছেন। আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ এই ধরনের রেসিপি আমাদের সাথে শেয়ার করার জন্য।

রুইমাছ আমার খুবই প্রিয়। এই মাছ একটু মোটাতাজা হলে খেতে খুবই সাধ হয়। আর আরো গুণগত মান বৃদ্ধি হয় যদি রান্না ধরণটা ভালো হয়ে থাকে। আমার খুবই ভালো লেগেছে আপনার রান্নার প্রসেস টা দেখে এবং ভিডিওর মাধ্যমে তা শেয়ার করেছেন।